বার্সেলোনা অধ্যায়ের ইতি মেসির,আকষ্মিক নাকি অনুমিত?

লিওনেল মেসিকে নতুন মৌসুমের জন্য চুক্তি করাতে পারছে না স্প্যানিশ ক্লাব বার্সেলোনা । অফিশিয়াল ওয়েবসাইটে নিশ্চিত করা হয়েছে মেসির চলে যাওয়ার খবরটি।ফলে ১৮ বছর পর বার্সা জার্সি ছাড়তে হচ্ছে ক্লাবের সবচেয়ে আইকনিক প্লেয়ারকে।

২০০৪ সালে বার্সার মূল দলে সুযোগ পান মেসি। এরপর থেকে একটি ক্লাবেই আছেন মেসি।

ঘটনার শুরুটা গত বছরের ২৫ আগস্ট থেকে। ক্লাব কর্তৃপক্ষকে ফ্যাক্স করে মেসি জানিয়েছিলেন, তিনি আর থাকতে চান না বার্সায়।অনুমতি চেয়েছিলেন ফ্রি-তে অন্য ক্লাবে চলে যাবার জন্য। একই বছরের ৪ সেপ্টেম্বর তাঁকে ধরে রাখতে ৭০০ মিলিয়ন ইউরোর রিলিজ ক্লজ জুড়ে দেয় বার্সা। সেই অবস্থায় আর ক্লাব ছাড়ার সুযোগ না হলেও ক্লাবের প্রতি ক্ষোভ তীব্র হয় মেসির।

বার্সার উত্তপ্ত পরিস্থিতি এবং মেসির সাথে সম্পর্কের অবনতির দায় নিয়ে ২৭ অক্টোবর বার্সার সাবেক প্রেসিডেন্ট জোসেফ বার্তামেউ পদত্যাগ করেন। তাঁর পদত্যাগের পর মেসির বার্সা ত্যাগের বিষয়টি অনেকটাই শিথিল হয়ে যায়।

এ বছর ৩০ জুন পর্যন্ত বার্সেলোনার সাথে চুক্তি ছিল লিওনেল মেসির।তবে কোপা আমেরিকা নিয়ে ব্যস্ত থাকায় চুক্তি নিয়ে তেমন সরব দেখা যায়নি মেসিকে। গণমাধ্যমেও নতুন চুক্তির বিষয়ে মুখ খোলেননি মেসি।

20210806 003422
বার্সা প্রেসিডেন্ট জুয়ান লাপার্তো।

গত ২৮ মে বার্সা প্রেসিডেন্ট জুয়ান লাপার্তো জানিয়েছিলেন, “মেসির সঙ্গে নতুন চুক্তি না হলেও চুক্তির বিষয়ে সবকিছু ঠিকঠাক চলছে।”

এদিকে ৩০ জুন মেসির সঙ্গে বার্সেলোনার চুক্তি শেষ হয়ে যায় । অন্য কোন ক্লাবে যোগ না দিয়ে কাতালানদের সঙ্গে থেকে যাওয়ার সিদ্ধান্ত নেন মেসি। এবার অর্ধেক বেতনে বার্সায় থাকার ব্যাপারেও রাজী ছিলেন মেসি।কিন্তু বাধা হয়ে দাড়ালো লা লিগার নতুন ‘ফাইনান্সিয়াল ফেয়ার প্লে’ নিয়ম।

গত ৪ আগষ্ট নতুন মোড় নেয় লিওনেল মেসির চুক্তি। সিভিসি নামের একটি বিনিয়োগ প্রতিষ্ঠানের কাছে দুই দশমিক সাত বিলিয়ন ইউরোতে লা লিগার ১০ শতাংশ শেয়ার বিক্রির ঘোষণা আসে। যেখান থেকে ২৮০ মিলিয়ন ইউরো পাবার কথা ছিল দেনায় জর্জরিত বার্সেলোনার। আর এই অর্থ দিয়েই মেসিকে নতুন চুক্তিতে সই করাতে আলোচনা শুরু করে কাতালান ক্লাবটি।

যে আর্থিক কারণে এতদিন থমকে ছিলো চুক্তি আনুষ্ঠানিকতা, সেটা সমাধান হয়ে যাওয়ায় ভক্তরাও সুখবরের প্রহর গুণতে থাকেন। কিন্তু মেসির প্রতিনিধির সঙ্গে ফলপ্রসু আলোচনা হয়নি বার্সেলোনা কর্তৃপক্ষের।

ফলে নতুন করে দেখা দিয়েছে অনিশ্চয়তা। লা লিগার কাছ থেকে ২৮০ মিলিয়ন ইউরো নিলে, শেষ হয়ে যাবে বার্সার ইউরোপিয়ান সুপার লিগ স্বপ্ন। আর যা কোনোভাবেই চান না লাপোর্তা।

20210806 021945
বার্সার অফিসিয়াল বিবৃতি

এ সব কিছুর পরিপ্রেক্ষিতে বার্সেলোনার অফিসিয়াল ওয়েবসাইটের এক বিবৃতিতে জানানো হয়, ” লিওনেল মেসি এফসি বার্সেলোনায় থাকছেন না। ক্লাব এবং খেলোয়াড় নতুন চুক্তিতে স্বাক্ষর করার স্পষ্ট ইচ্ছার সত্ত্বেও আর্থিক এবং কাঠামোগত প্রতিবন্ধকতার কারণে দুই পক্ষের সম্মতিকে আনুষ্ঠানিক রূপ দেওয়া সম্ভব হচ্ছে না।”

একই সাথে বার্সেলোনা ক্লাবের উন্নতিতে অবদানের জন্য মেসির প্রতি আন্তরিকভাবে কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করে এবং তাঁর ব্যক্তিগত এবং পেশাগত জীবনে ভবিষ্যতের জন্য তাঁকে শুভ কামনা জানায়।

আপনার মন্তব্য জানাবেন

দয়া করে আপনার মন্তব্য লিখুন !
দয়া করে এখানে আপনার নাম লিখুন